নির্বাচনে অংশ নিতে পারছেন না চিফ হুইফ আ স ম ফিরোজ

Spread the love

।। নিজস্ব প্রতিবেদক।।

জাতীয় সংসদের চিফ হুইফ আ স ম ফিরোজের ঋণ নবম বারের মতো পুন:তফসিল করতে সোনালি ব্যাংকের সিদ্ধান্ত স্থগিত করেছে হাইকোর্ট। এর ফলে ঋণ খেলাপি হওয়ায় নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন না আ স ম ফিরোজ।

সোনালী ব্যাংকের নেয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে এ সংক্রান্ত এক রিট আবেদনের শুনানি শেষে আজ বৃহস্পতিবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন ব্যারিস্টার রোকন উদ্দিন মাহমুদ ও এম মাইনুল ইসলাম। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোখলেসুর রহমান।

এ বিষয়ে রিটকারীর আইনজীবী এম মাইনুল ইসলাম বলেন, ‘আ স ম ফিরোজ ঋণ নিয়ে পরিশোধ না করে ক্ষমতার অপব্যবহার করেছেন। ব্যাংক কর্তৃপক্ষও অবৈধভাবে ঋণ নবম বারের মতো পুনঃতফসিল করেছেন। এই আদেশের ফলে আ স ম ফিরোজ এখন ঋণখেলাপী। ফলে তিনি আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন না।’

চলতি সপ্তাহে পটুয়াখালীর বাউফল পৌরসভার মেয়র জিয়াউল হক হাইকোর্টে এ রিট করেন।

এদিকে, দুর্নীতির মামলায় সাজা স্থগিত চেয়ে ঝিনাইদের সাবেক সংসদ সদস্য আব্দুল ওহাব ও খাগড়াছড়ির সাবেক এমপি ওয়াদুদ ভূঁইয়া হাইকোর্টে আপিল করেছেন।

আগামী রবিবার আবেদনের উপর শুনানি হবে। অবৈধ সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপন করার দায়ে আট বছরের সাজা হয় সাবেক এমপি আব্দুল ওহাবের। বিচারিক আদালতের এই সাজা স্থগিত চেয়ে আবেদন করা হয়।

দুর্নীতির মামলায় খাগড়াছড়ি জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক এমপি ওয়াদুদ ভূঁইয়াকে ২০ বছর সাজা দেয় বিচারিক আদালত। দুই সাবেক এমপি এসব মামলায় জামিনে রয়েছেন। নির্বাচনে অংশ নেয়ার জন্য হাইকোর্টে সাজা স্থগিত চেয়ে আবেদন করেন তারা।

Print Friendly, PDF & Email
শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ