মুম্বই হামলায় জড়িতদের বিষয়ে তথ্য দিলে ৫০ লাখ ডলার পুরস্কার

Spread the love

।। আন্তর্জাতিক ডেস্ক  ।।

মুম্বইয়ে সন্ত্রাসী হামলার ১০ম বর্ষপূর্তিতে ওই হামলাকে বর্বরতা বলে উল্লেখ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। এ নিয়ে সোমবার তিনি ওই হামলায় লস্করে তৈয়বা ও অন্য জড়িতদের বিরুদ্ধে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা বাস্তবায়ন করার আহ্বান জানান পাকিস্তান ও অন্য দেশগুলোকে। একই সঙ্গে ওই হামলা পরিকল্পনা ও এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কাউকে গ্রেপ্তারে বা অভিযুক্ত করার ক্ষেত্রে তথ্য দিয়ে সহায়তাকারীকে ৫০ লাখ ডলার পুরস্কার ঘোষণা করেন। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের রিওয়ার্ডস ফর জাস্টিস প্রগ্রামের অধীনে এই পুরস্কার ঘোষণা করেন তিনি।

মুম্বই হামলার ১০ম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে একটি বিবৃতি দিয়েছেন মাইক পম্পেও। এতে তিনি বলেছেন, মুম্বই হামলার ১০ বছর পরেও এতে জড়িত অনেকের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন বা শাস্তি ঘোষণা করা হয় নি। এটা স্বজন হারানো মানুষগুলোর পরিবারের কাছে বেদনার। পম্পেও বলেন, লস্করে তৈয়বা ও এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট অন্যরা সহ মুম্বই নৃশংসতার জন্য যারা দায়িী তাদের বিরুদ্ধে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা বাস্তবায়নে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের বাধ্যবাধকতা রয়েছে সব দেশের, বিশেষ করে পাকিস্তানের তো বটেই।

উল্লেখ্য, লস্করে তৈয়বার ১০ সন্ত্রাসী ২০০৮ সালের ২৬ শে নভেম্বরে মুম্বইয়ে তাজ হোটেল ও আশপাশে হামলা চালায়। ওই হোটেলের অতিথিদের জিম্মি করে এক ধ্বংসলীলায় মেতে ওঠে তারা। আগুন ধরিয়ে দিয়ে এক ভীতিকর পরিস্থিতি সৃষ্টি করে মুম্বইয়ে। হোটেলের ভিতরে মুহুর্মুহু গুলি ছুড়তে থাকে তারা। এ সময় মার্কিনি সহ কমপক্ষে ১৬৬ জন নিহত হন। হামলাকারীদের ৯ জনকে পুলিশ হত্যা করে। তবে জীবিত অবস্থায় শুধু একজনই ধরা পড়ে তাদের। সে হলো আজমল কাসাব। দীর্ঘদিন তার বিচার চলার পর ভারতের আদালত তাকে মৃত্যুদন্ড দেয়। সেই মৃত্যুদন্ড কার্যকর করা হয়েছে। তবে এখনও জড়িত অনেকে আছে বলে মন্তব্য করেছেন মাইক পম্পেও। তিনি বলেন, ওই হামলার জন্য দায়ী এমন আরো যেসব লোক আছে তাদেরকে বিচারের মুখোমুখি করা হচ্ছে তা দেখতে চায় যুক্তরাষ্ট্র। তিনি আরো বলেন, যুক্তরাষ্ট্র সরকার ও সব মার্কিনির পক্ষ থেকে মুম্বই হামলার ১০ম বর্ষপূর্তিতে ভারতের মানুষ ও মুম্বই শহরবাসীর প্রতি আমি সংহতি প্রকাশ করছি। বর্বর ওই হামলায় ৬ মার্কিনি সহ যেসব প্রিয়জন নিহত হয়েছেন তাদের পরিবার ও বন্ধুবান্ধবদের পাশে রয়েছি আমরা।

Print Friendly, PDF & Email
শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ